Barbaroslar

বারবারোসলার ভলিউম ৩১ বাংলা সাবটাইটেল অনুবাদ মিডিয়া

বারবারোসলার ভলিউম ৩১ বাংলা সাবটাইটেল অনুবাদ মিডিয়া

একইভাবে রাশিয়াও তুর্কিদের সমর্থন দাবি করে প্রতিরক্ষা ও আত্মরক্ষা মৈত্রী জোটের জন্য । আরো এগিয়ে গিয়ে জার অটোমান সাম্রাজ্যের অর্থডক্স খ্রিস্টানদের রক্ষাকর্তা হিসেবে স্বীকৃতি দাবি করে সুলতানের কাছে। এছাড়াও তাদের রাশীয় কূটনীতিকের ক্ষমতা প্রদান ও দাবি করে বসলে সুলতান সেলিমের মুসলমানসুলভ অহংকার পদদলিত হয়। সেবাসটিয়ানির পরামর্শে ওয়ালাসিয়া ও মলদোভিয়া থেকে জারের দূতদের পদচ্যুত করেন সুলতান । চুক্তি ভঙ্গের আচরণে ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে রাশিয়া; একই ভাবে ব্রিটেন। এভাবে পোর্তের প্রতি সংকেত দেয়া হয় যে এক পক্ষের সামরিক ও অপর পক্ষের নৌবাহিনী “নতুন তাড়না লাভ করতে পারে” ।

একজন তোপিজি, সুলতানের ফরাসি প্রশিক্ষিত গোলন্দাজদের একজন ।সুলতান শান্তি সম্পর্কে উদ্দিগ্ন হয়ে ক্রোধ প্রশমনের প্রস্তুতি গ্রহণ করেন। কিন্তু রাশিয়ার সেনাবাহিনী কোনোরূপ যুদ্ধ ঘোষণা ব্যতীত মলদোভিয়া ও ওয়ালাসিয়ায় অগ্রসর হয়ে তৎপরতার সাথে দানিযুবের দিকে এগিয়ে যায়। পোর্তের সেনাবাহিনী বিটিশ কূটনীতিকের হুমকির কাছে মাথানত না করে রাশিয়ার বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করে বসে।

এভাবে ১৮০৭ সালে আ্যাডমিরাল ডুকওয়ার্থের নেতৃত্বে ব্রিটিশ রণতরী দার্দেনালেস হয়ে মারমারা সাগরে যাত্রা করে। পৌর্তের কাছে চরমপত্র পেশ করে ডুকওয়ার্থ! অটোমান রণতরীর সমর্পণ দাবি করে নচেৎ এটি পুড়িয়ে দিয়ে ইস্তাম্বুলে গোলাবর্ষণ করবে বিটিশ নৌবাহিনী । বিটিশ মন্ত্রী ও তার  আ্যাডমিরালের সাথে দশ দিনব্যাপী হয় আলোচনা বৈঠক। এই সুযোগে সুলতান নিজের রণতরীকে কামানের রেঞ্জের বাইরে নিয়ে যান ও সেবাসটিয়ানির যে কিনা সেরাগলিওর বাগানেই নিজের তীবু গেড়েছে, সহায়তায় শহরের দুর্গ রক্ষায় কামানশ্রেণী মজবুত করা হয়। এছাড়া তার সামরিক প্রকৌশলীর দার্দেনালেসের প্রতিরক্ষা ব্যবস্থাও জোরদার করে তোলে।

See also  বারবারোসা ভলিউম ৩২ বাংলা সাবটাইটেল অনুবাদ মিডিয়া

আযাডমিরাল ভুকওয়ার্থ নিজের সুযোগ হারিয়ে ফেলে । সমাপ্তি সুরে বুঝতে পারে যে বোমাবর্ষণ করলে নিজের রণতরীও সমস্যায় পড়বে । নোঙ্গর উঠিয়ে দার্দেনালেস দিয়ে ফিরে যায় ডুকওয়ার্থ। এক্ষেত্রে সেবাসটিয়ানির কামান মেরামতের তরিৎ কর্ম ধন্যবাদের যোগ্য । প্রাচীন বিশাল কামানের গোলা বর্ষিত হয় ডুকওয়ার্থের জাহাজে । একশ পাউন্ড ওজনের আগুনে গোলার আঘাতে দুটি জাহাজ হারায় ডুকওয়ার্থ। ইতিমধ্যে প্রণালির প্রতিরক্ষার জন্য পাঁচশো গোলন্দাজ এনে ফরাসি মিব্রতার ঘোষণা করে সুলতান সেলিম ।

ডুকওয়ার্থের মতো আরেকটি নিম্ছল নৌ-অভিযান হয় মাল্টা থেকে মিশরের বিরুদ্ধে। এতে আশা করা হয়েছিল যে মামলুকদের সহায়তায় দেশে শান্তি-শৃঙ্খলা প্রতিষ্ঠা করা সহজ হবে। কেননা মেসিডোনিয়া থেকে আগত আলবেনীয় মাহমুদ আলী নিজেকে কায়রোর প্রভু হিসেবে প্রতিষ্ঠার জন্য ফিরে এসেছে। নেপোলিয়নের সাথে একই বছরে জন্মগ্রহণ করা মাহমুদ আবোকির যুদ্ধে লড়েছে তীর বিরুদ্ধে। মিশরের পাশা হিসেবে নিয়োগ পেয়েছে এই মাহমুদ আলী।

মাহমুদ আলী আলেকজান্দ্রিয়া থেকে ব্রিটিশ বাহিনীকে বিচ্ছিন্ন করে দিয়ে চতুরতার সাথে উৎখাতের জন্য আলোচনা শুরু করে। এক্ষেত্রে ব্রিটিশ নৌ ও সামরিক বাহিনীকে ভূমধ্যসাগরে রসদ সরবরাহের শর্তে নিজের এবং তার উর্বর প্রদেশের সুবিধা আদায় করে নেয় মাহমুদ । এভাবেই সুলতানের নিয়ন্ত্রণ থেকে বের হয়ে মিশরে স্বায়ত্রশাসন কায়েমের লক্ষ্যে শাসকের উত্তব হয়।

See also  বারবারোসলার ভলিউম ৩০ বাংলা সাবটাইটেল অনুবাদ মিডিয়া

রাশিয়ার সাথে দানিয়ুব সীমান্তে যুদ্ধ চলছিল টিমেতালে। নেপোলিয়নের দিকে দৃষ্টি থাকায় তুর্কি বা রাশিয়া কোনো বাহিনী নিজেদের সর্বশ্রেষ্ঠ প্রচেষ্টা ঢেলে দিতে বাধাগ্রস্ত হয়। সীমান্তে সুলতান জানিসারিসদের অনুপস্থিতিতে তোপিজিদের নিয়োগ দান করেন। ওমর আঘার ছোট্ট বাহিনীকে আরো দুটোরেজিমেন্টে উন্নীত করে অস্ত্র প্রদানের মাধ্যমে ফরাসি ধাচে প্রশিক্ষণ প্রদান করেন সুলতান।

১৮০৫ সালে যুদ্ধক্ষেত্রে রাশিয়ার বিরুদ্ধে সৈন্যসংখ্যা কমে যাওয়া সুলতান এক সাহসী পদক্ষেপ গ্রহণ করেন। সাধারণ জনগণ ও জানিসারিসদের মাঝে তরুণ ও শ্রেষ্ঠ সৈন্যদের পাঠানোর সিদ্ধান্ত হয় সীমান্তের যুদ্ধে। যদিও জানিসারিসরা বেলঘ্রেডে পর্যুদস্ত হয়েছিল-_কিন্ত রায়াদের কল্যাণে অন্যান্য প্রদেশে এখনো হিংস্র উপস্থিতি আছে তাদের। আদ্রিয়ানোপলে সুলতানের আদেশ অমান্য করে তারা। এ নির্দেশ বলবতের দায়িতে থাকা অফিসারকে হত্যা করা হয়। কারামানিয়ার পাশার অধীনে সুলতানকে সমর্থন জানানো বিশাল বাহিনীও দানিয়ুবের যুদ্ধ মঞ্চে জানিসারিসদের হাতে পরাজিত হয়।

এর ফলে ইস্তাম্বুলে জানিসারিসরাও বিদ্রোহী হয়ে উঠলে দিওয়ান ও উলেমাদের মাঝে থেকে প্রতিক্রিয়াশীলরা তাদের সমর্থণ জানায়। রাশিয়ার সাথে যুদ্ধের এই মুহূর্তে রাজধানীতেও গৃহযুদ্ধ ও বিদ্রোহের আশঙ্কায় সুলতান বাধ্য হন প্রধান উজিরের অফিসে জানিসারিসদের আঘাকে নিয়োগদানে ।কিন্তু ১৮০৭ সালে গ্রীন্মের শুরুতে বসফরাসে কামান শ্রেণীর দায়িতে
থাকা ইয়ামাকদের নির্দেশ দেয়া হয় ইউরোপীয় ধাচে ইউনিফর্ম ও অস্ত্রাদিতে সঙ্জিত হতে।

See also  বারবারোসা ভলিউম ৩২ বাংলা সাবটাইটেল অনুবাদ মিডিয়া

এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদস্বরূপ ইস্তাম্বুলের হিপোড্রোমে অগ্রসর হয় তারা; এখানে আরো হাজারো জানিসারিস তাদের সাথে মিলিত হয়। একজন অধস্তন গভর্নর মুসা পাশা, যে কিনা বিশ্বাসঘাতকতার জন্য কুখ্যাত ছিল ও প্রধান মুফতির সহায়তায় ট্রাইব্যুনাল বসায় বিদ্রোহীরা। এ বিচার সভায় সংস্কারকর্মে সুলতানকে সমর্থন প্রদানকারী মন্ত্রী ও উপদেষ্টাদের বিচার করা হয় ও ইস্তাম্বুলের জনগণকে তাদের বিরুদ্ধে খেপিয়ে তোলা হয়।

বারবারোসলার ভলিউম ৩১ বাংলা সাবটাইটেল অনুবাদ মিডিয়া

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button